বড়লেখায় লক ডাউন শুনেই দোকানগুলোতে উপচেপড়া ভিড়; যানজটে নাখাল পৌরশহর

সিলেট বিডি নিউজ
প্রকাশিত ৪, এপ্রিল, ২০২১, রবিবার
বড়লেখায় লক ডাউন শুনেই দোকানগুলোতে উপচেপড়া ভিড়; যানজটে নাখাল পৌরশহর

তাহমীদ ইশাদ রিপন, বড়লেখা: লক ডাউনের খবর শুনেই মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলায় হাজীগঞ্জ বাজারের নিত্যপ্রয়োজনীয় দোকান ও বিপনি-বিতানগুলোতে ঈদ উৎসবের মত ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড় দেখা গেছে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দ্রুত বেড়ে যাওয়ায় ফের লকডাউনে যাচ্ছে পুরো দেশ। শনিবার সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের তার সরকারি বাসভবনে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান।

সোমবার ৫ এপ্রিল থেকে ১২ এপ্রিল পর্যন্ত লকডাউনে যাচ্ছে পুরো দেশ এমন খবর শুনার পর রোববার বড়লেখা হাজিগঞ্জ বাজারে সকাল থেকে ক্রেতাদের সমাগম লক্ষ্য করার মত। নিত্য প্রয়োজনীয় মুদি দোকান থেকে শুরু করে বিপনি-বিতানগুলোতেও উপচেপড়া ভিড় দেখা গেছে।

রোববার সকাল ১০টার দিকে হাজিগঞ্জ বাজারে সরেজমিনে দেখা যায়, উপজেলার প্রত্যেন্ত অঞ্চল থেকে ক্রেতারা বিভিন্ন যানবাহন ভাড়া করে বড়লেখা হাজিগঞ্জ বাজারে আসতে দেখা গেছে। গণপরিবহন ও ভাড়া করে গাড়ি নিয়ে আসার কারণে পৌর শহরের ডাকবাংলো রোড, স্টেশন রোড, মধ্যে বাজারে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। এর মধ্যে প্রবাসীদের একটা বড় অংশ রয়েছে বড়লেখা উপজেলায়। লকডাউনের খবর শুনে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য মজুদ করতে পাইকারি দোকানগুলোতে পুরুষদের তুলানায় মহিলা ক্রেতাদের ভিড় লক্ষণীয় ছিল।

এদিকে ক্রেতাদের উপচেপড়া ভিড়ে ব্যস্ত সময় পার করেছেন মুদি দোকানিরা পিছিয়ে নেই বিপনি বিতান, কাচা বাজার, মাছ-মাংসের দোকানিরাও। কারণ হিসেবে মদিনা ভেরাইটিজ স্টোরের সত্বাধিকারী আব্দুল আজিজ বলেন, জনসাধারণ মনে করছেন এক সপ্তাহের লক ডাউন চলমান অবস্থায় হয়তো দীর্ঘ হতে পারে তাছাড়া আসন্ন মাহে রমজানের কারণেও ক্রেতারা দোকানগুলোতে ভিড় জমাচ্ছেন।

সুড়িকান্দি থেকে আসা একজন ক্রেতা হাজি নুরুল ইসলাম বলেন, করোনার প্রাদুর্ভাব বেড়ে যাওয়ায় সরকার এক সপ্তাহের লকডাউন ঘোষণা দিয়েছেন তাছাড়া আগামী ১৪ এপ্রিল থেকে পবিত্র মাহে রমজান শুরু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে সেজন্য নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি সাধ্যানুযায়ী সংগ্রহ করার চেষ্ঠা করছি।

বড়লেখা হাজিগঞ্জ বাজারের ট্রাফিক পুলিশ বিলাল আহমদ বলেন, সোমবার থেকে লকডাউন কার্যকর হতে যাচ্ছে শুনে বড়লেখা হাজিগঞ্জ বাজারের দোকানগুলোতে ক্রেতারা ভিড় জমিয়েছেন।

একদিকে গণপরিবহন অন্যদিকে ব্যক্তিগত গাড়ি ও ভাড়া করে নিয়ে আসা গাড়ি, মোটরসাইকেল সহ অন্যান্য গণপরিবহন অন্যান্য দিনের তুলনায় আজ বেশী লক্ষ্য করা যাচ্ছে।

এ কারণে অন্যান্য দিনের তুলনায় আজ বড়লেখা পৌর শহরে যানজট মাত্রাতিরিক্ত বেশী। এরকম যানজট ঈদ উৎসব আসলে দেখা যায়। যানজটে নিরসনে আমারা সকাল থেকে বিরামহীন কাজ করে যাচ্ছি।

 466 total views

শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন
  • 143
    Shares
error: Content is protected !!